আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
প্রযুক্তি

কমেছে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের দাম

internetওমেনআই: সর্বস্তরের মানুষকে স্বল্প মূল্যে এবং ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে ইন্টারনেট সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে গত এক বছরে মোবাইল ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের মূল্য ৩০ শতাংশেরও বেশি কমানো হয়েছে।
কোনো কোনো ক্ষেত্রে মোবাইল ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের মূল্য কমেছে ৫০ শতাংশ পর্যন্ত। গত এক বছরে সরকারি মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিটকের প্রতি জিবিপিএস ব্যান্ডউইথের গড় মূল্য কমেছে ৫০ শতাংশ। অন্যদিকে বেসকারি মোবাইল ফোন অপারেটর গ্রামীণফোন তাদের ব্যান্ডউইথ প্রতি জিবিপিএস মোবাইল ব্রান্ডউইথের গড় মূল্য ৫৬ শতাংশের বেশি কমিয়েছে। বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।
বিটিআরসির দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত সাত বছরে বিভিন্ন সময়ে ব্রান্ডউইথের মূল্য প্রায় ৯০ শতাংশ কমেছে। দেশে ইন্টারনেট সেবা সুলভ ও সাশ্রয়ী করতে ২০০৮ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত সাত দফায় প্রতি এমবিপিএস ব্যান্ডউইথ চার্জ কামানো হয়েছে।
২০০৮ সালের জুলাইয়ে ব্রান্ডউইথের মূল্য ছিল ২৭ হাজার টাকা, ২০০৯ সালের জুলাইয়ে তা কমে হয় ১৮ হাজার টাকা। ২০১১ সালের ফেব্রুয়ারিতে তা আরও কমিয়ে ১২ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয় এবং ওই সালের আগস্টে আরও এক দফা কমিয়ে ১০ হাজার টাকা করা হয়। এর পর ২০১২ সালের সেপ্টেম্বরে আট হাজার, ২০১৩ সালের এপ্রিলে চার হাজার ৮০০ ও সর্বশেষ ২০১৪ সালের এপ্রিলে তা দুই হাজার ৮০০ টাকায় কমিয়ে আনা হয় যা বর্তমানে চলমান রয়েছে।
বর্তমান প্রতিযোগিতামূলক বাজারে মোবাইল অপারেটররা বিভিন্ন সময়ে তাদের ব্যান্ডউইথের মূল্য প্রদত্ত মূল্যের চেয়েও বেশি কমিয়েছে। আবার অপারেটররা বিটিআরসির নির্দেশনার পরিপ্রেক্ষিতে তাদের প্রদত্ত ব্যান্ডউইথ ক্যারি ফরওয়ার্ড (আগের মাসের অব্যবহৃত ডাটা পরের মাসে একই প্যাকেজে যোগ) করে যা ছয় মাস পর্যন্ত বহাল থাকে।
বর্তমানে দেশে ১২৫ টাকায় এক জিবিপিএস মোবাইল ব্যান্ডউইথের সেবা সুবিধা পাওয়া যায়। তবে এই মূল্য ধাপে ধাপে কমানোর প্রক্রিয়া চলমান।

ঢাকা, ০৮ আগস্ট(্ওমেনঅাই)//এসএল//

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close