আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
সারাদেশ

রংপুরে নারী শ্রমিকের কদর বেশি

রংপুর প্রতিনিধি:: রংপুরে পুরুষদের চেয়ে নারীর শ্রম সস্তা হওয়ার কারণে কৃষকরা আগাম বুকিং দিচ্ছে নারী শ্রমিকদের জন্য। রবি মৌসুমের ফসল উত্তোলনে নারীরা এখন ঘর থেকে বেড়িয়ে মাঠে অবস্থান করছেন। আলু উত্তোলন, বোরো ধানের চারা রোপন, তামাক ক্ষেতের পরিচর্যাসহ অন্যান্য কাজে নারী শ্রমিকরাই প্রিয় হয়ে উঠেছেন কৃষকের কাছে। দামেও সস্তা, কাজেও স্বাভাবিক-এ অবস্থায় কৃষকরা গ্রামীণ নারীদের কাজে লাগাচ্ছেন বেশি।

গত কয়েক দিন ধরে তিস্তার চরে ক্ষেত থেকে আলু উত্তোলনের ধুম পড়েছে। ইছলী চরের কৃষক আহাদ আলী জানান, আলু তুলতে নারীদের প্রয়োজন বেশি। নারী শ্রমিকদের অভাবে আলু তোলার কাজ পিছিয়ে যাচ্ছে। আগাম টাকা না দিলে নারী শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছে না। এ ব্যাপারে জয়রামওঝা চরের কৃষক দুলাল মিয়া জানান, চরের গ্রামগুলোতে চলছে নারী শ্রমিক নিয়ে টানাটানি। পুরুষ শ্রমিক নিলে দ্বিগুণ টাকা দেওয়া লাগে। বড় কৃষকরা রাতেই মহিলাদের টাকা দিয়ে বুকিং দিয়ে রাখছেন, যাতে তারা অন্যের কাজে যেতে না পারে।

সরেজমিনে তিস্তার বিভিন চরাঞ্চল ঘুরে দেখা গেছে, মাঠে-ঘাটে আলু তুলতে নারীদের পদচারনা। প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত শত শত নারী আলু তুলতে ব্যস্ত। কেউ বা কাটছেন তামাক পাতা। প্রতিদিনের কাজের জন্য তারা মজুরী পান এলাকা ভেদে ১০০ থেকে ১২০ টাকা পর্যন্ত।

গজঘন্টা ইউনিয়নের কিশামত হাবু গ্রামের নারী শ্রমিক সন্ধ্যা রাণী জানান, গেরস্তরা রাইতোত হামাক আগাম টাকা দিয়া যায়। মজুরী কম হইলেও কাম জুটতোছে, দুই মুঠ খাবার পাইতোছি।

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close