আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
জাতীয়

একুশে পদক পাচ্ছেন ১৫ বিশিষ্ট নাগরিক

ওমেন আই:
বিভিন্ন ক্ষেত্রে অসামান্য অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ দেশের ১৫ জন বিশিষ্ট নাগরিককে একুশে পদক-২০১৪ দেয়া হচ্ছে। মঙ্গলবার মনোনীত এই ১৫ নাগরিকের নাম প্রকাশ করেছে সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়।

এর মধ্যে- ভাষা আন্দোলনে শামসুল হুদা ও ডা. বদরুল আলম (মরণোত্তর), সাংবাদিকতায় গোলাম সারওয়ার, শিক্ষায় ড. অনুপম সেন, শিল্পকলায় কেরামত মওলা, রামকানাই দাশ, এসএম সোলাইমান ও সমরজিৎ রায় চৌধুরী, ভাষা ও সাহিত্যে বিপ্রদাস বড়ুয়া, বেলাল চৌধুরী, রশিদ হায়দার, জামিল চৌধুরী ও আব্দুস শাকুর, সমাজসেবায় ডা. মজিবুর রহমান এবং গবেষণায় ড. এনামুল হক।

শামসুল হুদা:
সংগ্রামী কিংবদন্তি ভাষা সৈনিক শামসুল হুদা ১৯৩২ সালের ১ ডিসেম্বর ফেনী জেলার সোনাগাজী উপজেলার অন্তর্গত চর চান্দিয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। ছাত্রাবস্থায় দৈনিক ইত্তেফাকসহ বিভিন্ন পত্রিকায় সহ-সম্পাদক হিসেবে সাংবাদিকতায় নিয়োজিত ছিলেন। ছাত্র জীবনে গঠনমূলক রাজনীতি ও ভাষা আন্দোলনের সঙ্গে সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলেন এবং দীর্ঘদিন কারাবরণ করেন। ভাষা-আন্দোলনের কারণে তাকে তদানিন্তন পাকিস্তান সরকারের সেন্ট্রাল সুপেরিয়র সার্ভিস (সিএসপি) থেকে বঞ্চিত করা হয়। ১৯৪৮ থেকে ১৯৫২ সাল পর্যন্ত ছাত্রলীগ কর্মী ও ছাত্রনেতা হিসেবে ভাষা আন্দোলনের সকল কর্মসূচিতে সক্রিয় অংশগ্রহণ এবং রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে অনুষ্ঠিত বিভিন্ন সমাবেশ, মিছিল, গণসংযোগে বিশেষ ভূমিকা পালন করেন।

ডা. বদরুল আলম:
ঢাকায় নির্মিত প্রথম শহীদ মিনারের নক্সাকারী ডা. বদরুল আলম ১৯২৯ সালে জামালপুর জেলার শেরপুরে জন্মগ্রহণ করেন। তার পৈতৃক নিবাস নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে। বাবা আলহাজ মৌ. নাসির উদ্দিন আহমদ, মা তহুরুন্নেছা। তিনি ১৯৫৬ সালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস পাস করেন। বদরুল আলম ছিলেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের ১৯৪৬ সালের প্রথম ব্যাচের ছাত্র। রাজনীতি, ভাষা-আন্দোলন এবং নানা সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার কারণে শিক্ষাজীবন বিপর্যন্ত হয়েছে। ১৯৪৭ সাল থেকেই তিনি ভাষা-আন্দোলনে শরিক হন। তিনি ছিলেন ‘শিল্পী সংঘ’-এর অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। নাটক, অংকন, লেখালেখি, সাহিত্যচর্চা ছিল তার নেশা। ১৯৮০ সালের ১০ সেপ্টেম্বর তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

ড. অনুপম সেন:
১৯৪০ সালের ৫ আগস্ট চট্টগ্রাম মহানগরীর আইস ফ্যাক্টরি রোডের পৈতৃক বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন অনুপম সেন। গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের বোয়ালখালী থানাধীন ধলঘাট গ্রামে, একসময় এই গ্রাম ছিল পটিয়া থানার অন্তর্গত। দেশি-বিদেশি বিভিন্ন জার্নালে তার গবেষণা নিবন্ধ যেমন প্রকাশিত হয়েছে তেমনি বাংলা ও ইংরেজি দু’ভাষাতেই বেশ কিছু গ্রন্থও প্রকাশিত হয়েছে। বিভিন্ন সংবাদপত্র ও সাময়িকীতে তিনি শিল্প-সংস্কৃতি ও সাহিত্যের নানা শাখায়ও লেখালেখি করে থাকেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close