আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
রাজনীতিস্লাইড

রাজকে গলাটিপে ধরে নিয়ে গেছে পুলিশ : ফখরুল

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, অবস্থান কর্মসূচি চলাকালে ছাত্রদলের নেতা মিজানুর রহমান রাজের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে পুলিশ। এ সময় রাজের গলাটিপে ধরে নিয়ে গেছে তারা।
আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১টায় রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আয়োজিত অবস্থান কর্মসূচিতে পুলিশি বাধার প্রতিবাদ জানানে এ সংবাদ করা হয়।
মির্জা ফখরুল বলেন, আজ আমাদের এক ঘন্টার একটা কর্মসূচি ছিল। মিথ্যা মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে কারাগারের প্রেরণ ও তার মুক্তির দবির প্রতিবাদে আমাদের যে ধারাবাহিক কর্মসূচি এটা তার মধ্যে একটা। এই কর্মসূচির ব্যাপারে আগে থেকেই পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জানানো হয়েছিল। কিন্তু এই শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশ হামলা চালায়।
তিনি বলেন, কর্মসূচি চলাকালে পুলিশ ছাত্রদলের ঢাকা উত্তর মহানগরীর সভাপতি মিজানুর রহমান রাজকে আটক করতে গেলে দলের সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে পুলিশের ধস্তাধস্তি হয়। এসময় সিনিয়র কয়েকজন নেতা পড়ে গিয়ে আহত হন। এসময় বক্তব্য রাখছিলেন চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নাল আবদীন ফারুক। রাজের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে কাপড় ছিড়ে ফেলে পুলিশ। এসময় তার গলাটিপে ধরে টানতে টানতে নিয়ে যায় তারা।
বিএনপির এই নেতা বলেন, শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশ এ হামলা ন্যক্কারজনক। আমি এ হামলার ধিক্কার যানাচ্ছি।
এ সময় শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশি এ হামলার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন তিনি।
এর আগে বেলা ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচি শুরু হয়। এতে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ভাইস চেয়ারম্যান বরকতউল্লাহ বুলু, মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাসসহ কয়েক হাজার নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
এ কর্মসূচি বেলা ১২টা পর্যন্ত চলার কথা ছিল। কিন্তু পৌনে ১২টার দিকে ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রদলের সভাপতি মিজানুর রহমান রাজকে আটক করে পুলিশ। একে কেন্দ্র করে কর্মসূচি পণ্ড হয়ে যায়।

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close