আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
অপরাধ

আড়াইহাজারে পুলিশকে ইয়াবা বিক্রির খবর দিয়ে সেই নারীই মাদকসহ গ্রেফতার

ওমেনআই ডেস্ক : নারায়নগঞ্জের আড়াইহাজারে মুঠোফোনে ইয়াবা বিক্রি হচ্ছে এমন খবর দিয়ে পুলিশ ডেকে আনা মুক্তা নামে সেই নারীকে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতার হওয়া ওই নারীর ঘর থেকে ৭০ পিস ইয়াবা ও পাঁচ পুড়িয়া হেরোইন উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি থানা পুলিশের।

মুক্তা ঝাউগড়া এলাকার ৫নং ওয়ার্ডের মহসিনের স্ত্রী । বৃহম্পতিবার রাতে ওই নারীর দেয়া তথ্যমতে মাদকদ্রব্য উদ্ধার করতে গিয়ে গণপিটুনির শিকার হন আড়াইহাজার থানা পুলিশের চার সদস্য।

পুলিশের দেয়া তথ্যানুসারে, ঝাউগড়া এলাকার মহসিনের স্ত্রী মুক্তা নামে এক নারী বৃহম্পতিবার রাতে একটি মুঠোফোন থেকে পুলিশে খবর দেয় ওই এলাকার রমজানের ঘরে ইয়াবা বিক্রি করা হচ্ছে। এমন খবরের ভিত্তিতে পুলিশের এসআই কাসেমসহ আরও চার পুলিশ সদস্য ঘটনাস্থলে যায়। রমজানের ঘরে তল্লাশি করতে গেলে পুলিশের ওপর হামলা চালানো হয়।

এতে পুলিশের ওই সদস্য আহত হন। এ ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়। পরে রাতেই ফের অভিযান চালিয়ে পুলিশকে তথ্য প্রদানকারি মুক্তার ঘর থেকে ৫ পুড়িয়া হেরোইন ও ৭০পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছেন বলে পুলিশের দাবী।

আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম এ হক বলেন, গ্রেফতার হওয়া ওই নারী পুলিশের কাছে তার মোবাইল থেকে মিথ্যা তথ্য দিয়ে পরে মোবাইলটি বন্ধ করে দেয়।

তবে গণপিটুনির বিষয়টি অস্বীকার করে ওসি আরও জানান, তথ্য পেয়ে মাদক উদ্ধার করতে গিয়ে পুলিশের সাথে রমজানের পরিবারের লোকজনের সামান্য ধস্তাধস্তির ঘটনা ঘটেছে।

তিনি বলেন, গ্রেফতার হওয়া ওই নারীর ঘর থেকে ৭০ পিস ইয়াবা ও পাঁচ পুড়িয়া হেরোইন উদ্ধার করা হয়েছে।

তবে এ ঘটনার পর থেকে ওই এলাকার লোকজনের মধ্যে গ্রেফতার আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। এর ফলে প্রায় ২০টি পরিবার তাদের বসত ঘর তালাবদ্ধ করে অন্যত্র চলে গেছেন। এদিকে গ্রেফতার হওয়া মুক্তার পরিবারের লোকজনের অভিযোগ, পুলিশের কাছে মাদক বিক্রেতার তথ্য দেয়ায় মুক্তার বিরুদ্ধেই উল্টো মিথ্যা একটি মামলা দিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

আপলোডেড বাই : অরণ্য সৌরভ

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close