আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
খেলাধুলা

বিদায় লঙ্কানদের, সুপার ফোরে বাংলাদেশ-আফগানিস্তান

ওমেনআই ডেস্ক: এশিয়া কাপে হোয়াইটওয়াশ শ্রীলঙ্কা। প্রথমে বাংলাদেশ পরে আফগানিস্তান। দু’দলের কাছেই বড় ব্যবধানে হার। ছিটকে পড়লো এশিয়া কাপের ১৪তম আসর থেকে।

বাংলাদেশের বিপক্ষে হারটা অপ্রত্যাশিত না হলেও আফগানিস্তানের বিপক্ষে হার একরকম অপ্রত্যাশিত। লঙ্কানদের এই হারে এক ম্যাচ হাতে রেখেই বাংলাদেশ আর আফগানিস্তান উঠে গেলো দ্বিতীয় রাউন্ডে। এবার লড়াইটা গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হবার।

আবুধাবির আবু জায়েদ আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার বিকেলে টুর্নামেন্টে টিকে থাকার লড়াইয়ে নেমেছিল শ্রীলঙ্কা। সোজা কথা বাঁচা-মরার ম্যাচ।

টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত আফগান অধিনায়কের। ব্যাটিংয়ে শুরুটা দারুণ ছিল মোহাম্মদ শাহাজাদ আর ইহসানুল্লাহ’র জুটিতে। ৪৭ বলে ৩৪ রানের মাথায় শাহাজাদ লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়লে প্রথম জুটি ভাঙে ৫৭ রানে।

দুই নম্বরে ব্যাট করতে আসা রহমত শাহ তুলে নেন অর্ধশত। এর আগে ৪৫ রান করে আউট হন ইহসান। মিডল অর্ডারে হাসমতউল্লাহর ৩৭ রান আর মোহাম্মদ নবী, রশিদ খানদের ছোট ছোট ইনিংসে ২৪৯ রান সংগ্রহ সব উইকেট হারিয়ে।

থিসারা পেরেরার ৫৫ রান খরচায় উইকেট আর আগের ম্যাচে চার উইকেট পাওয়া মালিঙ্গা নিলেন এক উইকেট, তাও আবার ৬৬ রান দিয়ে।

আড়াইশ রানের লক্ষ্য টপকাতে গিয়ে প্রথম ওভারেই ধাক্কা খায় লঙ্কানরা। মুজিব উর রহমানের বল বুঝে ওঠার আগেই লেগ বিফোরের শিকার ওপেনার কুশল মেন্ডিস। উপল থারাঙ্গা করলেন ৬৪ বলে ৩৬ রান।

এরপর লঙ্কান ব্যাটিং লাইনআপের কোমর সোজা করে দাঁড়াতে সুযোগ দেয়নি মুজিব, রশিদ খান, গুলাবদিন নাঈব, নবীরা মিলে। এদের সবাই নেন দুটি করে উইকেট।

একের পর এক আঘাতে বিদ্ধ লঙ্কানরা দিশেহারা। পেস কি স্পিনার, বল যেন চোখেই দেখছিল না চণ্ডিকার শিষ্যরা। ১৫৮ রান তুলতেই শেষ সব উইকেট। ড্রেসিং রুমে বসে করুণ হার আর খালি হাতে বিদায় দেখা ছাড়া কিছুই করার ছিল না টাইগারদের সাবেক গুরুর। ক্রিকেট বুঝি এমন নিষ্ঠুর!

মানবকণ্ঠ/অরণ্য সৌরভ

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close