আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
আন্তর্জাতিক

আমেরিকা যাওয়ার পথে ধর্ষিত হয় ৮০ ভাগ

americaওমেনআই : মধ্য আমেরিকার দেশগুলো থেকে প্রত্যেক বছর উল্লেখযোগ্য সংখ্যক মানুষ উন্নত জীবনের আশায় পাড়ি জমায় স্বপ্নের দেশ আমেরিকায়। আর যাওয়ার পথেই ঘটে যায় তাদের জীবনের সবচেয়ে বড় দুঃস্বপ্নটি। ধর্ষণ, যা সমাজের একটা অবক্ষয়ে পরিণত হয়েছে।অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের প্রতিবেদন অনুযায়ী, মধ্য আমেরিকার দেশগুলো থেকে মেক্সিকো হয়ে যুক্তরাষ্ট্র যাওয়ার পথে ৮০ শতাংশ মহিলা ও শিশু ধর্ষণের শিকার হন।পিউ রিসার্চ স্টাডির দেয়া তথ্যানুযায়ী ধারণা করা হচ্ছে, শুধু এ বছরই প্রায় ৭০ হাজার কিশোর-কিশোরী অবৈধভাবে যুক্তরাষ্ট্রে যাওয়ার চেষ্টা করে। এদের অধিকাংশই আসে মধ্য আমেরিকার দেশ এল সালভাদর, গুয়েতেমালা ও হন্ডুরাস থেকে। যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ পশ্চিম সীমান্তে ধরা পড়া এ রকম কিশোর-কিশোরীদের মধ্যে বালকের থেকে বালিকার সংখ্যা অনেক বেশি।শুধু মে মাসেই অনুপ্রবেশের সময় ধরা পড়া কিশোরীর সংখ্যা আগের থেকে ৭৭ শতাংশ বেশি। মূলত যৌন হয়রানির ভয়েই এসব অল্প বয়সী কিশোরী ঘর ছেড়ে যুক্তরাষ্ট্রের পথে পা বাড়ায়। যে দুঃস্বপ্ন থেকে দূরে থেকে জীবনে বেঁচে থাকার অদম্য লড়াইয়ের উদ্দেশ্যে পা বাড়ানো, সেই দীর্ঘ পথ পাড়ি দেয়ার সময়ই তাদের সেই দুঃস্বপ্ন আবারো হানা দেয়।গবেষণা সংস্থা ফিউশনের মতে, যদি সঙ্গীবিহীন অবস্থায় তারা পথে না বের হতো তাহলে তাদের এ ভাগ্যবরণ করতে হতো না। তবে কখনো কখনো ঘুষের টাকা জোগাড় করার জন্যও তাদেরকে শরীর বিক্রি করতে হয়। অবস্থাটা এতটাই প্রকট হয়ে গেছে যে, ধর্ষিত হওয়ার আগেই অনেক নারী জন্মনিয়ন্ত্রণ সামগ্রী ব্যবহার করা শুরু করে।এক্ষেত্রে আরো একটি ভয়ঙ্কর বিষয় হলো, নিপীড়িতদের সংখ্যা সব সময় বাস্তবে তুলে ধরে সম্ভব হয় না। কেননা নিজ দেশে ফেরত পাঠানো হবে, এ ভয়ে অনেকেই যৌন নিগ্রহের বিষয়টি নিয়ে মুখ খোলে না। বিষয়টির ওপর প্রতিবেদন তৈরি করার সময় মেক্সিকো হয়ে যুক্তরাষ্ট্র প্রবেশের একটি পথে মাত্র ৬ জনকে এ বিষয়ে মুখ খুলতে দেখা গেছে।

ঢাকা, ১৬ সেপ্টম্বর (ওমেনআই)/এলএইচ/

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close