আমাদের নুতন ওয়েবসাইট www.womeneye24.com চালু হয়েছে। নুতন সাইট যাবার জন্য এখানে ক্লিক করুন
আন্তর্জাতিকস্পট লাইট

২৫ এর আগে বিয়ে নয়: বিহারের মুখ্যমন্ত্রী

mouওমেনআই: বিয়ের করার উপযুক্ত বয়স কোনটা- এ নিয়ে নানা সমাজে নানা মত প্রচলিত। এ বিষয়ে এবার মত প্রকাশ করলেন ভারতের বিহারের মুখ্যমন্ত্রী জিতান রাম মানঝি। তার মতে নারী-পুরুষের উভয়ের ক্ষেত্রে বিয়ের ন্যূনতম বয়স হওয়া উচিত ২৫! খবর এনডিটিভির।

জনতার দরবার অনুষ্ঠানে মঙ্গলবার মানঝি সাংবাদিকদের বলেন, ২৫-এর পর নারী-পুরুষের বিয়ে হলে এটা তাদের দেহের সুস্থতা নিশ্চিত ও পুষ্টিহীনতা থেকে মুক্তি দিতে সাহায্য করবে।

ভারতে বিয়ের জন্য আইনত বয়সসীমা ছেলেদের ক্ষেত্রে ২১ ও মেয়েদের ক্ষেত্রে ১৮ বছর। এ বয়সসীমা আরও বাড়ানো উচিত বলে মন্তব্য করেন মানঝি।

তিনি বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি, প্রাচীন আশ্রম পদ্ধতি (হিন্দুধর্মের একটি প্রথা) অনুযায়ী ছেলে ও মেয়ে উভয়ের জন্য বিয়ের ন্যূনতম বয়সসীমা ২৫ করা উচিত।’

তিনি আরও বলেন, ‘এটা নারী ও শিশুদের খারাপ স্বাস্থ্য এবং পুষ্টিহীনতার সমস্যা দূর করবে।’

এ সময় নিজের সুস্থ দেহের কথা উল্লেখ করে ৭০ বছর বয়সী এই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ২৫ বছর বয়স হওয়ার পর বিয়ে করায় তার শরীর এতটা ভালো রয়েছে।

অল্প বয়সে বিয়ের বিরোধিতা করে মানঝি বলেন, ‘কেন মানুষের গড় উচ্চতা ৭ ফুট থেকে ৫ ফুটে নেমে এসেছে?’

মানঝি এ সময় হিন্দুধর্মে উল্লিখিত ‘আশ্রম’ প্রথার কথা উল্লেখ করেন। আশ্রম প্রথা অনুযায়ী জন্মের পর থেকে ২৪ বছর পর্যন্ত বয়সসীমাকে বলা হয়ে থাকে ‘ব্রক্ষ্মাচার্য’, ২৪-৪৮ বছর পর্যন্ত সময়কালকে বলা হয় ‘গৃহস্থ’, ৪৮-৭২ বছর পর্যন্ত সময়কালকে বলা হয় ‘বানপ্রস্থ’ ও ৭২ থেকে মৃত্যুকাল পর্যন্ত সময়কে ‘সন্ন্যাসা’ বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

ঢাকা,১৫ অক্টোবর (ওমেনআই)/এসএল/

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close